1. [email protected] : Abdur Razzak : Abdur Razzak
  2. [email protected] : admin :
  3. [email protected] : BDNewsFast :
  4. [email protected] : Abdul Jolil : Abdul Jolil
  5. [email protected] : Nazmus Sawdath : Nazmus Sawdath
  6. [email protected] : Tariqul Islam : Tariqul Islam
বৃহস্পতিবার, ১৬ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১০:১২ অপরাহ্ন

কাজিপুরে পরিবার পরিকল্পনা বিভাগের মেডিকেল অফিসারের দায়িত্বহীনতায় রোগীদের দূর্ভোগ

  • আপডেট এর সময় : বুধবার, ৫ ফেব্রুয়ারী, ২০২০
  • ২৮৫ বার দেখা হয়েছে

মোহাম্মদ আশরাফুল, কাজিপুর (সিরাজগঞ্জ) প্রতিনিধি.
সিরাজগঞ্জের কাজিপুর উপজেলা পরিবার পরিকল্পনা বিভাগের এমসিএইচএফপি চিত্রা ঘোষের দায়িত্বে ও কর্তব্যে অবহেলার কারণে সংশ্লিষ্ট বিভাগের সেবা পেতে আসা রোগিদের দূর্ভোগ বেড়েই চলেছে।

সংশ্লিষ্ট বিভাগ সূত্রে জানা যায়, প্রতি সপ্তাহের মঙ্গলবারে কাজিপুর সদর পরিবার পরিকল্পনা অফিসে ক্যাম্পেইন এর মাধ্যমে স্থায়ী ও দীর্ঘমেয়াদী পরিবার পরিকল্পনা ইমপ্লান্ট, লাইগেশন ও ভ্যাসেকট্রমি পদ্ধতির বিষয় সম্পাদন করা হয়। এদিকে সরেজমিনে গিয়ে দেখা যায় মেডিক্যাল অফিসার চিত্রা ঘোষ নিজে অফিসে নেই। নিয়ম বহির্ভুতভাবে এফ ডাব্লিও ভি শামিমা আকতার দায়িত্ব পালন করছেন। শামিমা আকতারকে জিঙ্গাসা করলে তিনি জানান, ম্যাডাম নেই। তবে এ দায়িত্ব আপনি পালন করছেন কেন এমন প্রশ্নের সঠিক উত্তর তিনি দিতে পারেননি। চিত্রা ঘোষকে না পেয়ে মুঠোফোনে ডিডির সাথে কথা বললে তিনি বিষয়টি দেখবেন বলে এড়িয়ে যান। অপরদিকে ঐ দিন সেবাপেতে আসা বেড়ী পোটলের গোলাম হোসেনের স্ত্রী রিক্তা খাতুনের ইমপ্লান্ট পদ্ধতি চেক করতে এসে তাকে রক্তাক্ত করেও কাঙ্খীত সেবা মেলেনি। এঘটনার সপ্তাহ খানেক আগে চরের পারদোরতার ইলিয়াসের স্ত্রী রুকসানা খাতুনের একই সমস্যা নিয়ে চিকিৎসা না পেয়ে তাকে বাড়ি ফেরৎ যেতে হয়েছে।

স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, দীর্ঘদিন যাবৎ তিনি নিজে দায়িত্ব পালন না করে এসিসটেন্টদের দ্বারা কাজ করিয়ে থাকেন। কাজিপুরের ৫টি মা ও শিশুকল্যাণ কেন্দ্রের জন্য বরাদ্দের কাজ সঠিক ভাবে সম্পন্ন না করে নিজেদের পছন্দমত নিন্মমানের সরঞ্জামাদী সরবরাহ করার পায়তারা চলছে। এমনকি সোনামুখী ও শুভগাছায় অবস্থিত উন্নতমানের স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ কেন্দ্র দুটির ২০১৬/১৭ এবং ১৭/১৮ বছরের কৌশর বান্ধব কর্ণার নির্মাণ ও সঞ্জামাদীর জন্য বরাদ্দের অর্থের কাজ এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত করা হয়নি।

এ বিষয়ে মেডিক্যাল অফিসার চিত্রা ঘোষের নিকট জানতে চাওয়া হলে তিনি মালামাল প্রস্তত রাখা হয়েছে বলে উল্লেখ করেন। উল্লেখ্য ইতি পূর্বে পেইড ভলেন্টিয়ারদের উঠান বৈঠকের টাকা কম প্রদান করা কালীন সাংবাদিকগণ অবগত হওয়ায় সংবাদ প্রকাশের পর সে টাকা আর কম প্রদান করতে পারেনি। সেবা পেতে আসা রোগী ও সচেতন মহলের দাবী যাতে দ্রুত তদন্ত করে সঠিক ব্যবস্থা নেন কর্তৃপক্ষ।

নিউজটি শেয়ার করে সকলের মাঝে ছড়িয়ে দিন

এই ক্যাটাগরির আরো কিছু খবর